X

২০ অক্টোবর ২০১৭ ৩:৪৭:০৮ | ৬ কাতর্িক ১৪২৪ শুক্রবার | ২৯ মহরম ১৪৩৯

প্রচ্ছদ  »   অর্থনীতি

দেশের চাল সংকট মোকাবিলা করতে ব্যবসায়ীদের চাল আমদানির নির্দেশ দিয়েছেন বাণিজ্যমন্ত্রী

দেশের চাল সংকট মোকাবিলা করতে ব্যবসায়ীদের চাল আমদানির নির্দেশ দিয়েছেন বাণিজ্যমন্ত্রী

চটের বস্তায় চাল আমদানির সরকারি বাধ্যবাধকতা আগামী তিন মাসের জন্য স্থগিত করা হলো দেশের চাল সংকট মোকাবিলা করতে চাল ব্যবসায়ীদের যেকোনো উপায়ে চাল আমদানির নির্দেশ দিয়েছেন বাণিজ্যমন্ত্রী তোফায়েল আহমেদ। আজ মঙ্গলবার দুপুরে সচিবালয়ে খাদ্য মন্ত্রণালয়ের সভাকক্ষে আয়োজিত চাল ব্যবসায়ীদের সঙ্গে বৈঠকে মন্তব্য করেছেন সরকারের দুইমন্ত্রী।বৈঠকের শুরুতে চাল ব্যবসায়ীরা চাল আমদানিতে চটের বস্তা ব্যবহারে সরকারি বাধ্যবাধকতার বিষয়টি তুলে ধরেন। ব্যবসায়ীরা বলেন, চটের বস্তায় চাল আমদানি করলে প্রতি কেজিতে এক টাকা খরচ বাড়ে। আর প্লাস্টিকের বস্তায় খরচ হয় মাত্র ১৫ পয়সা। ব্যবসায়ীদের এ অভিযোগ শুনে বাণিজ্যমন্ত্রী আজ থেকে চটের বস্তায় চাল আমদানির সরকারি বাধ্যবাধকতার সিদ্ধান্ত স্থগিত করার নির্দেশ দেন। পাশাপাশি সংকট না কাটা পর্যন্ত যেকোনো উপায়ে ব্যবসায়ীদের চাল আমদানির নির্দেশনা দেন।এ সময় তিনি বলেন, 'এখন যে যেভাবে পারেন চাল আনেন। আমি এনবিআর ও কাস্টমসকে বলে দিচ্ছি। কেউ বাধা দেবে না। এছাড়া ভারত থেকে জিটুজি পদ্ধতিতে চাল আমদানি করতে আমি নিজে কথা বলবো।’
এ সময় ব্যবসায়ীরা বাণিজ্যমন্ত্রীকে বলেন, ‘সংকট কাটাতে চাল আমদানির শুল্ক দেরিতে কমানো হয়েছে। এছাড়া চাল ও ধান সংগ্রহে সরকার যে দাম নির্ধারণ করেছে তা অনেক কম। তখন যদি চালের দাম ৩৪ টাকা নির্ধারণ না করে ৪০ টাকা করা হতো তবে আমরা অনেক চাল দিতে পারতাম।’বৈঠকে কৃষিমন্ত্রী মতিয়া চৌধুরী, খাদ্যমন্ত্রী অ্যাডভোকেট কামরুল ইসলাম এবং সাবেক খাদ্যমন্ত্রী আবদুর রাজ্জাক উপস্থিত ছিলেন।

ঢাকা,মঙ্গলবার,১৯ সেপ্টম্বর, এইচ বি নিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম।

User Comments

  • অর্থনীতি