জাবি সাংবাদিকতা বিভাগের নবীন বরণ ও বিদায় সংবর্ধনা অনুষ্ঠিত

‘গণমাধ্যম, প্রযুক্তি ও সম্ভাবনা’ প্রতিপাদ্যকে ধারণ করে জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ে(জাবি) অনুষ্ঠিত হয়েছে সাংবাদিকতা ও গণমাধ্যম অধ্যয়ন বিভাগের নবীন বরণ ও বিদায় সংবর্ধনা-২০১৮। শনিবার(২৩ ফেব্রুয়ারি) সকাল ১১টায় বিশ্ববিদ্যালয় জহির রায়হান অডিটরিয়ামের সেমিনার কক্ষে জাতীয় সঙ্গীতের মাধ্যমে অনুষ্ঠান করা উদ্বোধন হয়। এরপর স্বাগত বক্তব্য দেন সাংবাদিকতা বিভাগের সকল শিক্ষকবৃন্দ।
অনুষ্ঠানে প্রধান আলোচক হিসেবে বক্তব্য দেন ডিবিসি নিউজের সম্পাদক সম্পাদক জায়েদুল আহসান পিন্টু। তিনি নবীন শিক্ষার্থীদের অভিনন্দন জানিয়ে বিশ্ববিদ্যায় জীবনে তাদের সার্বিক মঙ্গল ও সফলতা কামনা করেন।
বিদায়ী শিক্ষার্থীদের উদ্দেশ্যে তিনি বলেন, `তোমরা যারা বিশ্ববিদ্যালয়ের একাডেমিক জীবনের গন্ডি পেরিয়েছো প্রকৃতপক্ষে পড়াশুনার সময় কেবল তোমদের শুরু হয়েছে। এখানে পড়াশুনা করেছো শুধু পাশ করার জন্য, এরপর পড়াশুনা শুরু হবে ক্যারিয়ার গড়ার জন্য। যেকোন পেশায় উজ্জ্বল ভবিষৎ গড়তে হলে অনেক পড়াশুনা করতে হয়। সাংবাদিকতায়ও ভালো করতে হলে পড়াশুনার বিকল্প নেই।’
সাংবাদিকতা বিভাগের সকল শিক্ষার্থীর উদ্দেশ্যে বলেন, ‘সাবাদিকতার ছাত্রদের অবশ্যই তথ্য সমৃদ্ধ হতে হবে। কর্ম জীবনে সৎ ও পরিশ্রমি হতে হবে। প্রযুক্তির এই যুগে যাচাই বাছাই ছাড়া কোন তথ্য প্রকাশ বা শেয়ার দেয়া যাবে না। ভুল ত্যে প্রকাশের মাধ্যমে কেউ যেন বিভ্রান্ত না হয়। একটি তথ্য সারা জীবনের বর্জ্য, নানা কারনে রিউমার ছড়ানো হয়, তাই এ ব্যাপারে সাবধানী হতে হবে। সত্যি না জানলে চুপ থাকতে হবে, কিন্তু মিথ্যা বলা যাবে না।’
সাংবাদিকতায় প্রযুক্তির ব্যবহার ও সম্ভাবনা নিয়ে তিনি বলেন, ‘প্রযুক্তি এসে সাংবাদিকতার পুরো ধরণটাই চেঞ্জ করে দিয়েছে। বর্তমানে যে সাংবাকিতার ধরণ এখন চলছে আগামী দশ বছর পরে এসে এ সাংবাদিকতার ধরণও থাকবে না। এখন আর কাগজ কলমে সংবাদ লিখতে হয় না। প্রযুক্তি আমাদের একসময় এমন পর্যায়ে নিয়ে যাবে যা কল্পনাতীত।’
বিভাগের সভাপতি উজ্জ্বল কুমার মণ্ডলের সভাপতিত্বে বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন কলা ও মানবিকী অনুষদের সাবেক ডিন অধ্যাপক সৈয়দ মোহাম্মদ কামরুল আহছান।
অধ্যাপক কামরুল আহছান তাঁর বক্তব্যে বলেন, ‘মাত্র চারজন শিক্ষক নিয়ে বিভাগের যাত্রা শুরু হয়েছিলো। আজ বিভাগটি প্রায় স্বয়ংসম্পূর্ণ। বিভাগের এই তরুণ শিক্ষকদের পরিশ্রম ও আপ্রাণ চেষ্টার মাধ্যমে বিভাগে যে কোন সেশনজট তৈরি হতে দেয়নি এটি বিশ্ববিদ্যালয়ে অন্যতম দৃষ্টান্ত হয়ে থাকবে। মাল্টিডিসিপ্লিনারি নেচারের সাংবাদিকতা বিভাগের শিক্ষক-শিক্ষার্থীরা অনেক বেশি তথ্যসমৃদ্ধ থাকে। এখানে শিক্ষক-শিক্ষার্থীদের বিভিন্ন ডিসিপ্লিনের তথ্য সংগ্রহ করতে হয়। তথ্যসমৃদ্ধতার কারনে বিভাগের শিক্ষার্থীরা অনেক দূরে এগিয়ে যেতে পারবে।’
উদ্বোধন ও আলোচনা পর্ব শেষে বিভাগ প্রতিষ্ঠার ইতিহাস ও বিভিন্ন স্মৃতি নিয়ে নির্মিত প্রামাণ্যচিত্র প্রদর্শন করা হয়। এছাড়াও অনুষ্ঠানের দিনব্যাপী নানা আয়োজনের ছিলো মধ্যে দুপুর ৩টায় বিদায়ী শিক্ষার্থীদের স্মৃতিচারণ এবং সবশেষে সন্ধ্যায় শিক্ষক-শিক্ষার্থীদের অংশগ্রহণে সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান।
সাগর কর্মকার, জাবি প্রতিনিধি :
ঢাকা,শনিবার,২৩ ফেব্রুয়ারি,এইচ বি নিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম।

Facebook Comments

সর্বশেষ আপডেট



» শ্রীলঙ্কায় বোমা হামলায় নিহত জায়ান চৌধুরীর লাশ মঙ্গলবার দেশে ফিরিয়ে আনা হবে

» শ্রীলঙ্কায় ভয়াবহ বোমা হামলায় মৃতের সংখ্যা বেড়ে ২৯০

» শ্রীলঙ্কায় নিহত আওয়ামী লীগের নেতা শেখ সেলিমের নাতি জায়ান চৌধুরীর লাশ ঢাকা আনা হবে আগামীকাল

» শ্রীলঙ্কায় বোমা বিস্ফোরণের ঘটনায় মৃতের সংখ্যা বেড়ে ২০৭

» যথাযোগ্য ধর্মীয় মর্যাদায় আজ রোববার রাতে সারাদেশে পবিত্র শবেবরাত পালন শুরু হয়েছে।

» শ্রীলঙ্কায় বোমা হামলায় আওয়ামী লীগের সভাপতিমণ্ডলীর সদস্য শেখ সেলিমের নাতি শিশু জায়ান চৌধুরীর মরদেহ উদ্ধার, এখনও নিখোঁজ এক বাংলাদেশি

» সৌদি আরবের রিয়াদের একটি থানায় হামলা, নিহত ৪

» প্রধানমন্ত্রীর জাদুকরী নেতৃত্বে বাংলাদেশ বদলে গেছে-তথ্যমন্ত্রী

» বিএনপির চেয়ারপারসন খালেদা জিয়াকে মুক্ত করে দেশের স্বাধীনতা সার্বভৌমত্ব ফিরিয়ে আনবো

» শ্রীলঙ্কায় বোমা হামলায় হতাহতের ঘটনায় রাষ্ট্রপতি ও প্রধানমন্ত্রীর শোক প্রকাশ

লাইক দিয়ে সংযুক্ত থাকুন

 

 

সম্পাদক-কাজী আবু তাহের মো. নাছির।
নির্বাহী সম্পাদক,আফতাব খন্দকার (রনি)

ফোন:+88 01714043198

গ-১০৩/২ মধ্যবাড্ডা লিংকরোড ঢাকা-১২১২
Email: hbnews24@gmail.com

Desing & Developed BY PopularITLtd.Com
,

জাবি সাংবাদিকতা বিভাগের নবীন বরণ ও বিদায় সংবর্ধনা অনুষ্ঠিত

‘গণমাধ্যম, প্রযুক্তি ও সম্ভাবনা’ প্রতিপাদ্যকে ধারণ করে জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ে(জাবি) অনুষ্ঠিত হয়েছে সাংবাদিকতা ও গণমাধ্যম অধ্যয়ন বিভাগের নবীন বরণ ও বিদায় সংবর্ধনা-২০১৮। শনিবার(২৩ ফেব্রুয়ারি) সকাল ১১টায় বিশ্ববিদ্যালয় জহির রায়হান অডিটরিয়ামের সেমিনার কক্ষে জাতীয় সঙ্গীতের মাধ্যমে অনুষ্ঠান করা উদ্বোধন হয়। এরপর স্বাগত বক্তব্য দেন সাংবাদিকতা বিভাগের সকল শিক্ষকবৃন্দ।
অনুষ্ঠানে প্রধান আলোচক হিসেবে বক্তব্য দেন ডিবিসি নিউজের সম্পাদক সম্পাদক জায়েদুল আহসান পিন্টু। তিনি নবীন শিক্ষার্থীদের অভিনন্দন জানিয়ে বিশ্ববিদ্যায় জীবনে তাদের সার্বিক মঙ্গল ও সফলতা কামনা করেন।
বিদায়ী শিক্ষার্থীদের উদ্দেশ্যে তিনি বলেন, `তোমরা যারা বিশ্ববিদ্যালয়ের একাডেমিক জীবনের গন্ডি পেরিয়েছো প্রকৃতপক্ষে পড়াশুনার সময় কেবল তোমদের শুরু হয়েছে। এখানে পড়াশুনা করেছো শুধু পাশ করার জন্য, এরপর পড়াশুনা শুরু হবে ক্যারিয়ার গড়ার জন্য। যেকোন পেশায় উজ্জ্বল ভবিষৎ গড়তে হলে অনেক পড়াশুনা করতে হয়। সাংবাদিকতায়ও ভালো করতে হলে পড়াশুনার বিকল্প নেই।’
সাংবাদিকতা বিভাগের সকল শিক্ষার্থীর উদ্দেশ্যে বলেন, ‘সাবাদিকতার ছাত্রদের অবশ্যই তথ্য সমৃদ্ধ হতে হবে। কর্ম জীবনে সৎ ও পরিশ্রমি হতে হবে। প্রযুক্তির এই যুগে যাচাই বাছাই ছাড়া কোন তথ্য প্রকাশ বা শেয়ার দেয়া যাবে না। ভুল ত্যে প্রকাশের মাধ্যমে কেউ যেন বিভ্রান্ত না হয়। একটি তথ্য সারা জীবনের বর্জ্য, নানা কারনে রিউমার ছড়ানো হয়, তাই এ ব্যাপারে সাবধানী হতে হবে। সত্যি না জানলে চুপ থাকতে হবে, কিন্তু মিথ্যা বলা যাবে না।’
সাংবাদিকতায় প্রযুক্তির ব্যবহার ও সম্ভাবনা নিয়ে তিনি বলেন, ‘প্রযুক্তি এসে সাংবাদিকতার পুরো ধরণটাই চেঞ্জ করে দিয়েছে। বর্তমানে যে সাংবাকিতার ধরণ এখন চলছে আগামী দশ বছর পরে এসে এ সাংবাদিকতার ধরণও থাকবে না। এখন আর কাগজ কলমে সংবাদ লিখতে হয় না। প্রযুক্তি আমাদের একসময় এমন পর্যায়ে নিয়ে যাবে যা কল্পনাতীত।’
বিভাগের সভাপতি উজ্জ্বল কুমার মণ্ডলের সভাপতিত্বে বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন কলা ও মানবিকী অনুষদের সাবেক ডিন অধ্যাপক সৈয়দ মোহাম্মদ কামরুল আহছান।
অধ্যাপক কামরুল আহছান তাঁর বক্তব্যে বলেন, ‘মাত্র চারজন শিক্ষক নিয়ে বিভাগের যাত্রা শুরু হয়েছিলো। আজ বিভাগটি প্রায় স্বয়ংসম্পূর্ণ। বিভাগের এই তরুণ শিক্ষকদের পরিশ্রম ও আপ্রাণ চেষ্টার মাধ্যমে বিভাগে যে কোন সেশনজট তৈরি হতে দেয়নি এটি বিশ্ববিদ্যালয়ে অন্যতম দৃষ্টান্ত হয়ে থাকবে। মাল্টিডিসিপ্লিনারি নেচারের সাংবাদিকতা বিভাগের শিক্ষক-শিক্ষার্থীরা অনেক বেশি তথ্যসমৃদ্ধ থাকে। এখানে শিক্ষক-শিক্ষার্থীদের বিভিন্ন ডিসিপ্লিনের তথ্য সংগ্রহ করতে হয়। তথ্যসমৃদ্ধতার কারনে বিভাগের শিক্ষার্থীরা অনেক দূরে এগিয়ে যেতে পারবে।’
উদ্বোধন ও আলোচনা পর্ব শেষে বিভাগ প্রতিষ্ঠার ইতিহাস ও বিভিন্ন স্মৃতি নিয়ে নির্মিত প্রামাণ্যচিত্র প্রদর্শন করা হয়। এছাড়াও অনুষ্ঠানের দিনব্যাপী নানা আয়োজনের ছিলো মধ্যে দুপুর ৩টায় বিদায়ী শিক্ষার্থীদের স্মৃতিচারণ এবং সবশেষে সন্ধ্যায় শিক্ষক-শিক্ষার্থীদের অংশগ্রহণে সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান।
সাগর কর্মকার, জাবি প্রতিনিধি :
ঢাকা,শনিবার,২৩ ফেব্রুয়ারি,এইচ বি নিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম।

Facebook Comments

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ



সর্বশেষ আপডেট



সর্বাধিক পঠিত



সম্পাদক-কাজী আবু তাহের মো. নাছির।
নির্বাহী সম্পাদক,আফতাব খন্দকার (রনি)

ফোন:+88 01714043198

গ-১০৩/২ মধ্যবাড্ডা লিংকরোড ঢাকা-১২১২
Email: hbnews24@gmail.com

© Copyright BY HBnews24.Com

Design & Developed BY PopularITLimited