করোনা ভাইরাস লাইভ

বাংলাদেশে

নতুন আক্রান্ত মোট আক্রান্ত সুস্থ মৃত্যু
১৫৬৭ ৩,৪৪,৩৭২ ২,৫৪,৩৮৬ ৪৯১৩

র‌্যাবের সোর্স কাশেমকে খুনের ঘটনায় মূল হোতাসহ চারজন গ্রেফতার

রাজধানীর শেরেবাংলা নগর থানাধীন পরিকল্পনা কমিশন এলাকার ফুটপাতে র‌্যাবের সোর্স কাশেমকে খুনের ঘটনায় মূল হোতাসহ চারজনকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ।পুলিশ বলছে, গ্রেফতারকৃতরা বিভিন্ন পেশার আড়ালে দীর্ঘদিন ধরে মাদক ব্যবসা করে আসছে।রাজধানীর বিভিন্ন এলাকা ও পটুয়াখালীতে অভিযান চালিয়ে তাদের গ্রেফতার করে শেরে বাংলা নগর থানা পুলিশ। এ সময় হত্যাকাণ্ডে ব্যবহৃত একটি সুইচ গিয়ার ছুরি উদ্ধার করা হয়।বৃহস্পতিবার (১০ সেপ্টেম্বর) ডিএমপির তেজগাঁও বিভাগের উপ-কমিশনার মোহাম্মদ হারুন অর রশীদ এসব তথ্য জানান।গ্রেফতাররা হলেন— হত্যার মূল পরিকল্পনাকারী জাহাঙ্গীর ওরফে রাতুল, রেজাউল, রুবেল ও মাসুদ।
গত ১ সেপ্টেম্বর শেরেবাংলা নগর থেকে নারী মাদক ব্যবসায়ী নুরজাহান ও তার ছেলেকে গ্রেফতার করে র‍্যাব। ওই নারী গ্রেফতারের পর রাতুলের ধারণা হয়, তার ধরা পড়ার পেছনে সোর্স কাশেম ওরফে কাইশ্যার (৩৫) হাত রয়েছে। এ কারণে কাশেমকে উচিত শিক্ষা দিতে হত্যার পরিকল্পনা করেন রাতুল। এর জেরেই পরিকল্পিতভাবে গত ৫ সেপ্টেম্বর কাশেমকে খুন করা হয়।ডিসি হারুন বলেন, গত ৫ সেপ্টেম্বর সন্ধ্যায় রাতুল মামাতো ভাই রেজাউলের সঙ্গে আড্ডা দিচ্ছিলেন পূর্ব-পরিচিত রুবেলের দোকানে। আড্ডার মাঝে এসে যোগ দেন রিকশাচালক মাসুদ। কথা প্রসঙ্গে কাশেমকে শিক্ষা দেওয়ার পরিকল্পনা করেন তারা।

এরপর রাতুল ও রুবেলের মোটরসাইকেলে করে চারজন মিলে খুঁজতে থাকেন কাশেমকে। এক পর্যায়ে উড়োজাহাজ ক্রসিং এলাকায় তারা কাশেমকে পেয়ে যান। ধারালো সুইচ গিয়ার বের করে ধাওয়া দিলে প্রাণভয়ে কাশেম দৌড়াতে থাকেন। এরপর পরিকল্পনা কমিশনের সামনের ফুটপাথে কাশেমকে ধরে ফেলেন তারা। সেখানেই সুইচ গিয়ার দিয়ে কাশেমকে উপর্যুপুরি আঘাত করা হয়।

পথচারীরা উদ্ধার করে তাকে সোহরাওয়ার্দী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত চিকিৎসক কাশেমকে মৃত ঘোষণা করেন। পরদিন গত ৬ সেপ্টেম্বর মৃতের স্ত্রী নাহার বাদী হয়ে শেরেবাংলা নগর থানায় একটি হত্যা মামলা দায়ের করেন। মামলার পর থেকেই অভিযানে নামে পুলিশ। সিসিটিভির ফুটেজের সূত্র ধরে পটুয়াখালী থেকে গ্রেফতার করা হয় মাসুদকে, এরপর তার দেওয়া তথ্যে গ্রেফতার করা হয় বাকিদের।
গ্রেফতারকৃতদের প্রত্যেকের বিরুদ্ধেই বিভিন্ন থানায় মামলা রয়েছে বলেও জানায় পুলিশ।
ঢাকা,বৃহস্পতিবার,১০ সেপ্টেম্বর,এইচ বি নিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম।

Facebook Comments

সর্বশেষ আপডেট



» ময়মনসিংহে মাইক্রোবাস ও পিকআপ ভ্যানের সংঘর্ষে বাবা ও ছেলের মৃত্যু

» যাচাই-বাছাই করে পরীক্ষিত নেতাকর্মীদের নাম তালিকায় আছে কি না তা দেখা হবে

» চট্টগ্রামের হাটহাজারী মাদ্রাসায় শাহ আহমদ শফীর জানাজা ও দাফন সম্পন্ন

» মসজিদে বিস্ফোরণে হতাহতের মামলায় তিতাসের বরখাস্ত ৮ কর্মকর্তা গ্রেফতার

» সোনামসজিদ স্থলবন্দর দিয়ে আসছে ভারতের পেঁয়াজ

» নতুন করে আরও ১৫৬৭ জন করোনা আক্রান্ত রোগী শনাক্ত,মৃত্যু ৩২ জন

» মসজিদে বিস্ফোরণের ঘটনায় আরও এক জনের মৃত্যু বেড়ে দাঁড়িয়েছে ৩৩

» আল্লামা শাহ আহমদ শফীর জানাজা শনিবার বাদ জোহর হাটহাজারী মাদ্রাসায়

» আল্লামা শাহ আহমদ শফীর মৃত্যুতে গভীর শোক ও দুঃখ প্রকাশ করেছেন রাষ্ট্রপতি ও প্রধানমন্ত্রী

» হেফাজতে ইসলাম বাংলাদেশের আমির আল্লামা আহমেদ শফী আর নেই

লাইক দিয়ে সংযুক্ত থাকুন

 

 

সম্পাদক-কাজী আবু তাহের মো. নাছির।
নির্বাহী সম্পাদক,আফতাব খন্দকার (রনি)

ফোন:+88 01714043198

গ-১০৩/২ মধ্যবাড্ডা লিংকরোড ঢাকা-১২১২
Email: hbnews24@gmail.com

Desing & Developed BY PopularITLtd.Com




আজ শনিবার, ১৯ সেপ্টেম্বর ২০২০ খ্রিষ্টাব্দ, ৪ঠা আশ্বিন, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ

র‌্যাবের সোর্স কাশেমকে খুনের ঘটনায় মূল হোতাসহ চারজন গ্রেফতার

ইউটিউবে সাবস্ক্রাইব করুন আমাদের চ্যানেলটি:

রাজধানীর শেরেবাংলা নগর থানাধীন পরিকল্পনা কমিশন এলাকার ফুটপাতে র‌্যাবের সোর্স কাশেমকে খুনের ঘটনায় মূল হোতাসহ চারজনকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ।পুলিশ বলছে, গ্রেফতারকৃতরা বিভিন্ন পেশার আড়ালে দীর্ঘদিন ধরে মাদক ব্যবসা করে আসছে।রাজধানীর বিভিন্ন এলাকা ও পটুয়াখালীতে অভিযান চালিয়ে তাদের গ্রেফতার করে শেরে বাংলা নগর থানা পুলিশ। এ সময় হত্যাকাণ্ডে ব্যবহৃত একটি সুইচ গিয়ার ছুরি উদ্ধার করা হয়।বৃহস্পতিবার (১০ সেপ্টেম্বর) ডিএমপির তেজগাঁও বিভাগের উপ-কমিশনার মোহাম্মদ হারুন অর রশীদ এসব তথ্য জানান।গ্রেফতাররা হলেন— হত্যার মূল পরিকল্পনাকারী জাহাঙ্গীর ওরফে রাতুল, রেজাউল, রুবেল ও মাসুদ।
গত ১ সেপ্টেম্বর শেরেবাংলা নগর থেকে নারী মাদক ব্যবসায়ী নুরজাহান ও তার ছেলেকে গ্রেফতার করে র‍্যাব। ওই নারী গ্রেফতারের পর রাতুলের ধারণা হয়, তার ধরা পড়ার পেছনে সোর্স কাশেম ওরফে কাইশ্যার (৩৫) হাত রয়েছে। এ কারণে কাশেমকে উচিত শিক্ষা দিতে হত্যার পরিকল্পনা করেন রাতুল। এর জেরেই পরিকল্পিতভাবে গত ৫ সেপ্টেম্বর কাশেমকে খুন করা হয়।ডিসি হারুন বলেন, গত ৫ সেপ্টেম্বর সন্ধ্যায় রাতুল মামাতো ভাই রেজাউলের সঙ্গে আড্ডা দিচ্ছিলেন পূর্ব-পরিচিত রুবেলের দোকানে। আড্ডার মাঝে এসে যোগ দেন রিকশাচালক মাসুদ। কথা প্রসঙ্গে কাশেমকে শিক্ষা দেওয়ার পরিকল্পনা করেন তারা।

এরপর রাতুল ও রুবেলের মোটরসাইকেলে করে চারজন মিলে খুঁজতে থাকেন কাশেমকে। এক পর্যায়ে উড়োজাহাজ ক্রসিং এলাকায় তারা কাশেমকে পেয়ে যান। ধারালো সুইচ গিয়ার বের করে ধাওয়া দিলে প্রাণভয়ে কাশেম দৌড়াতে থাকেন। এরপর পরিকল্পনা কমিশনের সামনের ফুটপাথে কাশেমকে ধরে ফেলেন তারা। সেখানেই সুইচ গিয়ার দিয়ে কাশেমকে উপর্যুপুরি আঘাত করা হয়।

পথচারীরা উদ্ধার করে তাকে সোহরাওয়ার্দী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত চিকিৎসক কাশেমকে মৃত ঘোষণা করেন। পরদিন গত ৬ সেপ্টেম্বর মৃতের স্ত্রী নাহার বাদী হয়ে শেরেবাংলা নগর থানায় একটি হত্যা মামলা দায়ের করেন। মামলার পর থেকেই অভিযানে নামে পুলিশ। সিসিটিভির ফুটেজের সূত্র ধরে পটুয়াখালী থেকে গ্রেফতার করা হয় মাসুদকে, এরপর তার দেওয়া তথ্যে গ্রেফতার করা হয় বাকিদের।
গ্রেফতারকৃতদের প্রত্যেকের বিরুদ্ধেই বিভিন্ন থানায় মামলা রয়েছে বলেও জানায় পুলিশ।
ঢাকা,বৃহস্পতিবার,১০ সেপ্টেম্বর,এইচ বি নিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম।

Facebook Comments

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ



সর্বশেষ আপডেট



সর্বাধিক পঠিত



সম্পাদক-কাজী আবু তাহের মো. নাছির।
নির্বাহী সম্পাদক,আফতাব খন্দকার (রনি)

ফোন:+88 01714043198

গ-১০৩/২ মধ্যবাড্ডা লিংকরোড ঢাকা-১২১২
Email: hbnews24@gmail.com

© Copyright BY HBnews24.Com

Desing & Developed BY PopularITLtd.Com

Translate »