করোনা ভাইরাস লাইভ

বাংলাদেশে

নতুন আক্রান্ত মোট আক্রান্ত সুস্থ মৃত্যু
৫৬৯ ৫,২৭,৬৩২ ৪,৭২,৪৩৭ ৭৯০৬

দক্ষ হয়ে যাচাই-বাছাইয়ের মাধ্যমে প্রবাসীদের বিদেশ যাওয়ার পরামর্শ দেন সরকারপ্রধান

করোনাকালে দেশে ফেরা প্রবাসীদের হতাশ না হয়ে দেশেই আত্মকর্মসংস্থানে নিয়োজিত হওয়ার আহ্বান জানিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। বুধবার (৬ জানুয়ারি) সকালে বঙ্গবন্ধু আন্তর্জাতিক সম্মেলন কেন্দ্রে আন্তর্জাতিক অভিবাসী দিবসের উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে গণভবন থেকে ভার্চুয়ালি যুক্ত হয়ে তিনি এ কথা বলেন। অন্ধের মতো বিদেশে না ছুটে, দক্ষ হয়ে যাচাই-বাছাইয়ের মাধ্যমে প্রবাসীদের বিদেশ যাওয়ার পরামর্শ দেন সরকারপ্রধান।কোভিড ১৯-এর আতঙ্কে বিপর্যস্ত বিশ্বে প্রভাব পড়া অন্যতম প্রধান খাত অভিবাসী। যার মধ্যে বিভিন্ন দেশে প্রায় ৮০ লাখ বাংলাদেশি অভিবাসীর অবস্থানও পড়েছে সংকটে। গত বছরের ১ এপ্রিল থেকে ৩০ নভেম্বর পর্যন্ত দেশে ফিরে আসা প্রবাসীদের এ সংখ্যাটি ৩ লাখ ২৬ হাজার ৭৫৮ জন।

বেশির ভাগ কর্মী ফিরেছেন করোনাকালে কাজ হারিয়ে। কেউ কেউ ছুটিতে এসে আর যেতে পারছেন না। কেউবা আবার বৈধতা না থাকায় ফিরতে হয়েছে। সমস্যা হলো, এই বিপুলসংখ্যক কর্মীর আবার বিদেশ যাওয়ার সুযোগও খুব সীমিত হয়ে পড়েছে।

এমন পরিস্থিতিতে বুধবার ‘মুজিব বর্ষের আহ্বান দক্ষ হয়ে বিদেশ যান’ স্লোগান নিয়ে দেশে পালিত হলো আন্তর্জাতিক অভিবাসী দিবস-২০২০। রাজধানী বঙ্গবন্ধু আন্তর্জাতিক সম্মেলন কেন্দ্রে অনুষ্ঠিত এ উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে গণভবন থেকে ভার্চুয়ালি যুক্ত হন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।

এ সময় সরকার প্রধান দেশে পর্যাপ্ত কর্মসংস্থান এমনকি আত্মকর্মসংস্থানের সুযোগ আছে জানিয়ে প্রবাসী কর্মীদের হতাশ না হওয়ার আহ্বান জানান।প্রধানমন্ত্রী বলেন, করোনাভাইরাসের কারণে অনেক জায়গায়ই স্থবির হয়ে গেছে। ফলে করোনাকালে অনেকই কাজ হারাচ্ছেন। যারা দেশে ফিরে এসেছেন, তাদের প্রণোদনা দিচ্ছি, তারা চাইলে কাজ করতে পারবে। কাজেই হতাশ না হয়ে দেশেই কাজ করেন।

আওয়ামী সরকার অভিবাসীদের কল্যাণে প্রশিক্ষণ কেন্দ্র, ব্যাংক ঋণ দেওয়া ছাড়াও সহায়তার নানা ব্যবস্থা করেছে উল্লেখ করে শেখ হাসিনা প্রত্যেকে কর্মীকে দক্ষ হয়ে বিদেশে যাওয়ার নির্দেশ দেন।

সরকারপ্রধান বলেন, আওয়ামী লীগ যখন সরকারে আসে, তখন থেকেই প্রবাসীদের কল্যাণে আমরা কাজ করছি। পাশাপাশি দেশের ভেতরেও কর্মসংস্থানের ব্যাপক সুযোগ সৃষ্টি করেছি। বিদেশ গিয়ে কে কি কাজ করবেন, সে ধরনের সব বিষয়ে প্রশিক্ষণের ব্যবস্থাও আমরা করেছি। যাতে বিদেশে গিয়ে তাদের কাজের ক্ষেত্রে সমস্যা না হয়।
দালালদের খপ্পরে পড়ে সব হারানোর বিষয়ে সবাইকে সতর্ক করে সরকার প্রধান বলেন, আপনারা কারো প্ররোচনায় বিদেশে গিয়ে বিপদে পড়লে সেটা নিজেদের জন্য, পরিবারের জন্য খুবই কষ্টকর, খুবই ক্ষতিকর। আপনারা জানেন যে কিছুদিন আগে লিবিয়ায় কতজনকে জীবন দিতে হলো। এমন পরিস্থিতির শিকার যেন আমার দেশের মানুষকে হতে না হয়।

শেখ হাসিনা বলেন, অনেক সময় যারা বিদেশে যাবে, তারা ধোকায় পড়ে লাখ লাখ টাকা খরচ করে, এজন্য ভিটেমাটি, জমি বিক্রি করে অথবা বন্ধক রাখে। কিন্তু যে সোনার হরিণ ধরবার জন্য বিদেশে ছোটে, সেখানে গিয়ে দেখে সেই বেতনও পাচ্ছে না। আরও মানবেতর জীবনযাপন করতে হচ্ছে। একদিকে যেমন নিজেদের সম্পত্তি হারানো, অন্য দিকে সেখানে গিয়ে উপযুক্ত কাজের অভাব। এ ধরনের অবস্থাও আমরা দেখেছি।

বিদেশ যাওয়ার ক্ষেত্রে ভিটেমাটি বিক্রি বা বন্ধক না রেখে প্রবাসীকল্যাণ ব্যাংক থেকে ঋণ নেওয়ার আহ্বান জানিয়ে প্রধানমন্ত্রী বলেন, আপনারা যারা বিদেশ যাবেন, তারা ব্যাংক থেকে ঋণ নিয়ে যেতে পারবেন, খুব স্বল্প সুদে ঋণ দেওয়া হয়। এ টাকা ব্যাংকে পাঠিয়ে ঋণ শোধ করতে পারবেন। জমিজমা বিক্রি বা বন্ধক রাখতে হবে না।

বিদেশে যাওয়ার আগে নিবন্ধন করার করার আহ্বান জানিয়ে শেখ হাসিনা বলেন, সমগ্র বাংলাদেশে যেসব ডিজিটাল সেন্টার করে দিয়েছি, তারই মাধ্যমে প্রবাসীকল্যাণ মন্ত্রণালয়ে নিবন্ধন করার সুযোগ আছে। আর নিবন্ধিত যারা যেখানেই কাজের সুযোগ পায়, তাদের সেখানে পাঠানো হয়। কাজেই সেজন্য ধৈর্য্য ধরতে হবে।তিনি বলেন, সব থেকে গুরুত্বপূর্ণ হলো যারা বিদেশে যাবেন, তাদের কর্মক্ষম করে গড়ে তোলা। তাদের বিভিন্ন ট্রেনিং দেওয়া, তাদের শিক্ষা দীক্ষা থেকে শুরু করে কে কি কাজ করবেন, সে কাজে একটা যোগ্যতা অর্জন করা। যাতে করে বাইরে গিয়ে তাদের কোনো বিপদে পড়তে না হয়। সেদিকে আমরা বিশেষভাবে পদক্ষেপ নিয়েছি।

সরকার প্রধান বলেন, যে-ই যখন বিদেশ যাবেন, কি কাজ করতে যাচ্ছেন, তার ওপর ট্রেনিং নিতে হবে। নিজেকে দক্ষ করে গড়ে তুলতে হবে। দক্ষ করে গড়ে তুলতে যথেষ্ট সুযোগ সৃষ্টি করে দিয়েছি। দেশের বিভিন্ন জায়গায় আমরা ট্রেনিং সেন্টার করে দিয়েছি।
ঢাকা,বুধবার,০৬ জানুয়ারি,এইচ বি নিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম।

Facebook Comments

সর্বশেষ আপডেট



» নরসিংদী ও মাধবদী পৌরসভা নির্বাচনে শান্তিপুর্ন ভাবে মনোনয়নপত্র দাখিল।

» ভোটার তালিকার খসড়া প্রকাশ নতুন ভোটার ১৪ লাখ ৬৫ হাজার ৪৬ জন

» নতুন করে আরও ৫৬৯ জন করোনা আক্রান্ত রোগী শনাক্ত,মৃত্যু ২৩ জন

» গ্লোব বায়োটেকের করোনা ভ্যাকসিন ‘বঙ্গভ্যাক্স’ ক্লিনিক্যাল ট্রায়ালের অনুমোদনের জন্য আবেদন

» চলচ্চিত্র শিল্পকে টিকিয়ে রাখার জন্য প্রয়োজনীয় উদ্যোগ নিচ্ছে সরকার

» বিজ্ঞান ও প্রযুক্তিমন্ত্রী স্থপতি ইয়াফেস ওসমানের স্ত্রী বুলাহ আহম্মেদ আর নেই

» রাজধানীর গুলশানের শাহজাদপুরে পিকআপ ভ্যানের ধাক্কায় এক ব্যক্তি নিহত

» কাকরাইলে আলোচিত মা ও ছেলেকে গলা কেটে হত্যা মামলায় তিনজনের ফাঁসির আদেশ

» বিশ্বজুড়ে করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন সাড়ে ৯ কোটি

» যুক্তরাষ্ট্রের নতুন প্রেসিডেন্ট জো বাইডেনের শপথ গ্রহণ: সশস্ত্র বিক্ষোভের শঙ্কায় ৫০ অঙ্গরাজ্যে সতর্কতা

লাইক দিয়ে সংযুক্ত থাকুন

 

 

সম্পাদক-কাজী আবু তাহের মো. নাছির।
প্রধান নির্বাহী সম্পাদক,আফতাব খন্দকার (রনি)

ফোন:+88 01714043198

গ-১০৩/২ মধ্যবাড্ডা লিংকরোড ঢাকা-১২১২
Email: hbnews24@gmail.com

Desing & Developed BY PopularITLtd.Com
আজ সোমবার, ১৮ জানুয়ারি ২০২১ খ্রিষ্টাব্দ, ৪ঠা মাঘ, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ

দক্ষ হয়ে যাচাই-বাছাইয়ের মাধ্যমে প্রবাসীদের বিদেশ যাওয়ার পরামর্শ দেন সরকারপ্রধান

ইউটিউবে সাবস্ক্রাইব করুন আমাদের চ্যানেলটি:

করোনাকালে দেশে ফেরা প্রবাসীদের হতাশ না হয়ে দেশেই আত্মকর্মসংস্থানে নিয়োজিত হওয়ার আহ্বান জানিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। বুধবার (৬ জানুয়ারি) সকালে বঙ্গবন্ধু আন্তর্জাতিক সম্মেলন কেন্দ্রে আন্তর্জাতিক অভিবাসী দিবসের উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে গণভবন থেকে ভার্চুয়ালি যুক্ত হয়ে তিনি এ কথা বলেন। অন্ধের মতো বিদেশে না ছুটে, দক্ষ হয়ে যাচাই-বাছাইয়ের মাধ্যমে প্রবাসীদের বিদেশ যাওয়ার পরামর্শ দেন সরকারপ্রধান।কোভিড ১৯-এর আতঙ্কে বিপর্যস্ত বিশ্বে প্রভাব পড়া অন্যতম প্রধান খাত অভিবাসী। যার মধ্যে বিভিন্ন দেশে প্রায় ৮০ লাখ বাংলাদেশি অভিবাসীর অবস্থানও পড়েছে সংকটে। গত বছরের ১ এপ্রিল থেকে ৩০ নভেম্বর পর্যন্ত দেশে ফিরে আসা প্রবাসীদের এ সংখ্যাটি ৩ লাখ ২৬ হাজার ৭৫৮ জন।

বেশির ভাগ কর্মী ফিরেছেন করোনাকালে কাজ হারিয়ে। কেউ কেউ ছুটিতে এসে আর যেতে পারছেন না। কেউবা আবার বৈধতা না থাকায় ফিরতে হয়েছে। সমস্যা হলো, এই বিপুলসংখ্যক কর্মীর আবার বিদেশ যাওয়ার সুযোগও খুব সীমিত হয়ে পড়েছে।

এমন পরিস্থিতিতে বুধবার ‘মুজিব বর্ষের আহ্বান দক্ষ হয়ে বিদেশ যান’ স্লোগান নিয়ে দেশে পালিত হলো আন্তর্জাতিক অভিবাসী দিবস-২০২০। রাজধানী বঙ্গবন্ধু আন্তর্জাতিক সম্মেলন কেন্দ্রে অনুষ্ঠিত এ উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে গণভবন থেকে ভার্চুয়ালি যুক্ত হন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।

এ সময় সরকার প্রধান দেশে পর্যাপ্ত কর্মসংস্থান এমনকি আত্মকর্মসংস্থানের সুযোগ আছে জানিয়ে প্রবাসী কর্মীদের হতাশ না হওয়ার আহ্বান জানান।প্রধানমন্ত্রী বলেন, করোনাভাইরাসের কারণে অনেক জায়গায়ই স্থবির হয়ে গেছে। ফলে করোনাকালে অনেকই কাজ হারাচ্ছেন। যারা দেশে ফিরে এসেছেন, তাদের প্রণোদনা দিচ্ছি, তারা চাইলে কাজ করতে পারবে। কাজেই হতাশ না হয়ে দেশেই কাজ করেন।

আওয়ামী সরকার অভিবাসীদের কল্যাণে প্রশিক্ষণ কেন্দ্র, ব্যাংক ঋণ দেওয়া ছাড়াও সহায়তার নানা ব্যবস্থা করেছে উল্লেখ করে শেখ হাসিনা প্রত্যেকে কর্মীকে দক্ষ হয়ে বিদেশে যাওয়ার নির্দেশ দেন।

সরকারপ্রধান বলেন, আওয়ামী লীগ যখন সরকারে আসে, তখন থেকেই প্রবাসীদের কল্যাণে আমরা কাজ করছি। পাশাপাশি দেশের ভেতরেও কর্মসংস্থানের ব্যাপক সুযোগ সৃষ্টি করেছি। বিদেশ গিয়ে কে কি কাজ করবেন, সে ধরনের সব বিষয়ে প্রশিক্ষণের ব্যবস্থাও আমরা করেছি। যাতে বিদেশে গিয়ে তাদের কাজের ক্ষেত্রে সমস্যা না হয়।
দালালদের খপ্পরে পড়ে সব হারানোর বিষয়ে সবাইকে সতর্ক করে সরকার প্রধান বলেন, আপনারা কারো প্ররোচনায় বিদেশে গিয়ে বিপদে পড়লে সেটা নিজেদের জন্য, পরিবারের জন্য খুবই কষ্টকর, খুবই ক্ষতিকর। আপনারা জানেন যে কিছুদিন আগে লিবিয়ায় কতজনকে জীবন দিতে হলো। এমন পরিস্থিতির শিকার যেন আমার দেশের মানুষকে হতে না হয়।

শেখ হাসিনা বলেন, অনেক সময় যারা বিদেশে যাবে, তারা ধোকায় পড়ে লাখ লাখ টাকা খরচ করে, এজন্য ভিটেমাটি, জমি বিক্রি করে অথবা বন্ধক রাখে। কিন্তু যে সোনার হরিণ ধরবার জন্য বিদেশে ছোটে, সেখানে গিয়ে দেখে সেই বেতনও পাচ্ছে না। আরও মানবেতর জীবনযাপন করতে হচ্ছে। একদিকে যেমন নিজেদের সম্পত্তি হারানো, অন্য দিকে সেখানে গিয়ে উপযুক্ত কাজের অভাব। এ ধরনের অবস্থাও আমরা দেখেছি।

বিদেশ যাওয়ার ক্ষেত্রে ভিটেমাটি বিক্রি বা বন্ধক না রেখে প্রবাসীকল্যাণ ব্যাংক থেকে ঋণ নেওয়ার আহ্বান জানিয়ে প্রধানমন্ত্রী বলেন, আপনারা যারা বিদেশ যাবেন, তারা ব্যাংক থেকে ঋণ নিয়ে যেতে পারবেন, খুব স্বল্প সুদে ঋণ দেওয়া হয়। এ টাকা ব্যাংকে পাঠিয়ে ঋণ শোধ করতে পারবেন। জমিজমা বিক্রি বা বন্ধক রাখতে হবে না।

বিদেশে যাওয়ার আগে নিবন্ধন করার করার আহ্বান জানিয়ে শেখ হাসিনা বলেন, সমগ্র বাংলাদেশে যেসব ডিজিটাল সেন্টার করে দিয়েছি, তারই মাধ্যমে প্রবাসীকল্যাণ মন্ত্রণালয়ে নিবন্ধন করার সুযোগ আছে। আর নিবন্ধিত যারা যেখানেই কাজের সুযোগ পায়, তাদের সেখানে পাঠানো হয়। কাজেই সেজন্য ধৈর্য্য ধরতে হবে।তিনি বলেন, সব থেকে গুরুত্বপূর্ণ হলো যারা বিদেশে যাবেন, তাদের কর্মক্ষম করে গড়ে তোলা। তাদের বিভিন্ন ট্রেনিং দেওয়া, তাদের শিক্ষা দীক্ষা থেকে শুরু করে কে কি কাজ করবেন, সে কাজে একটা যোগ্যতা অর্জন করা। যাতে করে বাইরে গিয়ে তাদের কোনো বিপদে পড়তে না হয়। সেদিকে আমরা বিশেষভাবে পদক্ষেপ নিয়েছি।

সরকার প্রধান বলেন, যে-ই যখন বিদেশ যাবেন, কি কাজ করতে যাচ্ছেন, তার ওপর ট্রেনিং নিতে হবে। নিজেকে দক্ষ করে গড়ে তুলতে হবে। দক্ষ করে গড়ে তুলতে যথেষ্ট সুযোগ সৃষ্টি করে দিয়েছি। দেশের বিভিন্ন জায়গায় আমরা ট্রেনিং সেন্টার করে দিয়েছি।
ঢাকা,বুধবার,০৬ জানুয়ারি,এইচ বি নিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম।

Facebook Comments

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ



সর্বশেষ আপডেট



সর্বাধিক পঠিত



সম্পাদক-কাজী আবু তাহের মো. নাছির।
প্রধান নির্বাহী সম্পাদক,আফতাব খন্দকার (রনি)

ফোন:+88 01714043198

গ-১০৩/২ মধ্যবাড্ডা লিংকরোড ঢাকা-১২১২
Email: hbnews24@gmail.com

© Copyright BY HBnews24.Com

Desing & Developed BY PopularITLtd.Com

Translate »
error: Alert: Content is protected !!