পৃথিবীর মায়া ত্যাগ করে বিদায় নিলেন অভিনেত্রী মায়া ঘোষ

Spread the love

পৃথিবীর মায়া ত্যাগ করে বিদায় নিলেন মঞ্চ, টিভি ও চলচ্চিত্র অভিনেত্রী এবং মুক্তিযোদ্ধা মায়া ঘোষ(৭০)। রোববার (১৯ মে) সকাল পৌনে ৯টার দিকে যশোরের কুইন্স হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তিনি শেষ নিঃশ্বাস ত্যাগ করেছেন।মায়া ঘোষের বড় ছেলে দীপক ঘোষ মৃত্যুর বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।তিনি দুরারোগ্য ব্যাধি ক্যানসারের সঙ্গে লড়াই করছিলেন দীর্ঘদিন ধরে। তিনি একাধারে মঞ্চ, নাটক ও চলচ্চিত্রের অভিনেত্রী ছিলেন। তার দুই পুত্র দীপক ঘোষ ও প্রদ্যুত ঘোষ জানান, ২০০০ সালে তাদের মায়ের শরীরে প্রথম ক্যানসার ধরে পড়ে।
২০০১ সালের ফেব্রুয়ারিতে কলকাতার সরোজগুপ্ত ক্যানসার হাসপাতালে চিকিৎসা শুরু হয়। ধারাবাহিকভাবে চলে চিকিৎসা। ২০০৯ সালের দিকে অনেকটা সুস্থ হয়ে ওঠেন। এরপর কিডনি, লিভার ও হাঁটুর সমস্যা দেখা দেয়। তারও চিকিৎসা চলছিল।
২০১৮ সালের অক্টোবর মাসে আবারও ক্যানসার ধরা পড়ে। পুনরায় কলকাতার সরোজগুপ্ত ক্যানসার হসপিটালে নেয়া হয় চলতি বছরের জানুয়ারিতে। সেখান থেকে ফিরে পুনরায় মার্চে যাওয়ার কথা বলা হয়। ১৩ মার্চ শারীরিক অবস্থার অবনতি হয়। এরপর ২২ মার্চ কলকাতায় নেয়া হয়। শারীরিক অবস্থার খুব বেশি উন্নতি হয়নি।
মায়া ঘোষও দেশে ফেরার জন্য ব্যাকুল ছিলেন। একপর্যায়ে গত ১৫ এপ্রিল তাকে দেশে ফিরিয়ে আনা হয়। শারীরিক অবস্থার অবনতি হওয়ায় তাকে যশোর কুইন্স হসপিটালে ভর্তি করা হয়। সেখানেই শেষ নিঃশ্বাস ত্যাগ করেন মায়া ঘোষ।১৯৪৯ সালের ৩১ ডিসেম্বর যশোরের মণিরামপুর উপজেলার প্রতাপকাটি গ্রামে মায়া ঘোষ জন্মগ্রহণ করেন। তার বাবার নাম শঙ্কর প্রসাদ গাঙ্গুলি। একই উপজেলার মাছনা-খানপুর গ্রামের দিলীপ ঘোষের সঙ্গে তিনি বিবাহ বন্ধনে আবদ্ধ হন। ১৯৮৪ সালে তারা ঢাকায় স্থায়ীভাবে বসবাস শুরু করেন।
১৯৮১ সালে ‘পাতাল বিজয়’ চলচ্চিত্রের মাধ্যমে বড় পর্দায় মায়া ঘোষের যাত্রা শুরু হয়। প্রায় দুই শতাধিক সিনেমায় অভিনয় করেছেন করেছেন তিনি। অসংখ্য মঞ্চ নাটক ও টিভি নাটকের অভিনেত্রী তিনি। সর্বশেষ ২০১৬ সালে ধারাবাহিক নাটক ‘ডিবি’তে তাকে অভিনয় করতে দেখা যায়।
বিনোধন ডেস্ক:,রোববার,১৯ মে,এইচ বি নিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম।

Facebook Comments
Download Nulled WordPress Themes
Download WordPress Themes
Download Premium WordPress Themes Free
Download WordPress Themes
free online course

সর্বশেষ আপডেট



» ঢাকায় এসে পৌঁছেছেন বাংলাদেশ জাতীয় ক্রিকেট দলের নবনিযুক্ত দক্ষিণ আফ্রিকান কোচ রাসেল ডমিঙ্গো আরও

» আয়শা সিদ্দিকা মিন্নিকে কেন জামিন দেওয়া হবে না, এই মর্মে এক সপ্তাহের রুল জারি করেছেন হাইকোর্ট

» রাষ্ট্রীয় অতিথি ভবন যমুনায় বাংলাদেশ-ভারত দুই দেশের পররাষ্ট্রমন্ত্রী পর্যায়ের বৈঠক

» ডেঙ্গু নির্মূলে ওয়ার্ডভিত্তিক ‘চিরুনি অভিযান’ কার্যক্রম শুরু করেছে ঢাকা উত্তর সিটি করপোরেশন

» ডেঙ্গু নিয়ন্ত্রণে ৫৮ হাজার ৭৪৭টি বাসায় অভিযান পরিচালনা করা হয়েছে-মেয়র সাঈদ খোকন

» নবম ওয়েজ বোর্ড নিয়ে হাইকোর্টের দেওয়া স্থিতাবস্থা স্থগিত করেছেন আপিল বিভাগ

» ঢাকায় এসেছেন ভারতের পররাষ্ট্রমন্ত্রী এস জয়শঙ্কর

» তিন দিনের সফরে ঢাকায় এসেছেন ভারতের পররাষ্ট্রমন্ত্রী এস জয়শঙ্কর

» মিরপুর-রূপনগরের ঝিলপাড় বস্তিতে অগ্নিকাণ্ডে ক্ষতিগ্রস্তদের মাঝে ত্রাণ বিতরণ করেন ওবায়দুল কাদের

» বিএনপিকে জড়িয়ে সরকারের মন্ত্রীরা অর্বাচীনের মতো বক্তব্য দিচ্ছে-মির্জা ফখরুল

লাইক দিয়ে সংযুক্ত থাকুন

 

 

সম্পাদক-কাজী আবু তাহের মো. নাছির।
নির্বাহী সম্পাদক,আফতাব খন্দকার (রনি)

ফোন:+88 01714043198

গ-১০৩/২ মধ্যবাড্ডা লিংকরোড ঢাকা-১২১২
Email: hbnews24@gmail.com

Desing & Developed BY PopularITLtd.Com

আজ মঙ্গলবার, ২০ আগস্ট ২০১৯ খ্রিষ্টাব্দ, ৫ই ভাদ্র, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ

পৃথিবীর মায়া ত্যাগ করে বিদায় নিলেন অভিনেত্রী মায়া ঘোষ

ইউটিউবে সাবস্ক্রাইব করুন আমাদের চ্যানেলটি:
Spread the love

পৃথিবীর মায়া ত্যাগ করে বিদায় নিলেন মঞ্চ, টিভি ও চলচ্চিত্র অভিনেত্রী এবং মুক্তিযোদ্ধা মায়া ঘোষ(৭০)। রোববার (১৯ মে) সকাল পৌনে ৯টার দিকে যশোরের কুইন্স হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তিনি শেষ নিঃশ্বাস ত্যাগ করেছেন।মায়া ঘোষের বড় ছেলে দীপক ঘোষ মৃত্যুর বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।তিনি দুরারোগ্য ব্যাধি ক্যানসারের সঙ্গে লড়াই করছিলেন দীর্ঘদিন ধরে। তিনি একাধারে মঞ্চ, নাটক ও চলচ্চিত্রের অভিনেত্রী ছিলেন। তার দুই পুত্র দীপক ঘোষ ও প্রদ্যুত ঘোষ জানান, ২০০০ সালে তাদের মায়ের শরীরে প্রথম ক্যানসার ধরে পড়ে।
২০০১ সালের ফেব্রুয়ারিতে কলকাতার সরোজগুপ্ত ক্যানসার হাসপাতালে চিকিৎসা শুরু হয়। ধারাবাহিকভাবে চলে চিকিৎসা। ২০০৯ সালের দিকে অনেকটা সুস্থ হয়ে ওঠেন। এরপর কিডনি, লিভার ও হাঁটুর সমস্যা দেখা দেয়। তারও চিকিৎসা চলছিল।
২০১৮ সালের অক্টোবর মাসে আবারও ক্যানসার ধরা পড়ে। পুনরায় কলকাতার সরোজগুপ্ত ক্যানসার হসপিটালে নেয়া হয় চলতি বছরের জানুয়ারিতে। সেখান থেকে ফিরে পুনরায় মার্চে যাওয়ার কথা বলা হয়। ১৩ মার্চ শারীরিক অবস্থার অবনতি হয়। এরপর ২২ মার্চ কলকাতায় নেয়া হয়। শারীরিক অবস্থার খুব বেশি উন্নতি হয়নি।
মায়া ঘোষও দেশে ফেরার জন্য ব্যাকুল ছিলেন। একপর্যায়ে গত ১৫ এপ্রিল তাকে দেশে ফিরিয়ে আনা হয়। শারীরিক অবস্থার অবনতি হওয়ায় তাকে যশোর কুইন্স হসপিটালে ভর্তি করা হয়। সেখানেই শেষ নিঃশ্বাস ত্যাগ করেন মায়া ঘোষ।১৯৪৯ সালের ৩১ ডিসেম্বর যশোরের মণিরামপুর উপজেলার প্রতাপকাটি গ্রামে মায়া ঘোষ জন্মগ্রহণ করেন। তার বাবার নাম শঙ্কর প্রসাদ গাঙ্গুলি। একই উপজেলার মাছনা-খানপুর গ্রামের দিলীপ ঘোষের সঙ্গে তিনি বিবাহ বন্ধনে আবদ্ধ হন। ১৯৮৪ সালে তারা ঢাকায় স্থায়ীভাবে বসবাস শুরু করেন।
১৯৮১ সালে ‘পাতাল বিজয়’ চলচ্চিত্রের মাধ্যমে বড় পর্দায় মায়া ঘোষের যাত্রা শুরু হয়। প্রায় দুই শতাধিক সিনেমায় অভিনয় করেছেন করেছেন তিনি। অসংখ্য মঞ্চ নাটক ও টিভি নাটকের অভিনেত্রী তিনি। সর্বশেষ ২০১৬ সালে ধারাবাহিক নাটক ‘ডিবি’তে তাকে অভিনয় করতে দেখা যায়।
বিনোধন ডেস্ক:,রোববার,১৯ মে,এইচ বি নিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম।

Facebook Comments

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ



সর্বশেষ আপডেট



সর্বাধিক পঠিত



সম্পাদক-কাজী আবু তাহের মো. নাছির।
নির্বাহী সম্পাদক,আফতাব খন্দকার (রনি)

ফোন:+88 01714043198

গ-১০৩/২ মধ্যবাড্ডা লিংকরোড ঢাকা-১২১২
Email: hbnews24@gmail.com

© Copyright BY HBnews24.Com

Desing & Developed BY PopularITLtd.Com