করোনা ভাইরাস লাইভ

বাংলাদেশে

নতুন আক্রান্ত মোট আক্রান্ত সুস্থ মৃত্যু
৬৭৯ ২০,২৪,৪৮৯ ১৯,৬৪,৫০১ ২৯,৩৬২

বন্ধুপ্রতিম দেশ হিসেবে ভারত থেকে সব বিষয়েই সহযোগিতা পাচ্ছি

ভারত থেকে কী পেলাম প্রশ্নটি আপেক্ষিক। ভারত থেকে কী পেয়েছি এটা নির্ভর করছে আপনি কীভাবে দেখছেন তার ওপর। বাংলাদেশের ভৌগলিক অবস্থানে চারদিকে ভারত। বন্ধুপ্রতিম দেশ হিসেবে ভারত থেকে সব বিষয়েই সহযোগিতা পাচ্ছি। বুধবার (১৪ সেপ্টেম্বর) গণভবনে ভারত সফর নিয়ে সংবাদ সম্মেলনে এসব কথা বলেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।

এ সময় প্রধানমন্ত্রী বলেন, এ সফরে বাংলাদেশের উল্লেখযোগ্য প্রাপ্তি আছে। সফরে রোহিঙ্গা প্রত্যাবাসন বিষয়ে সহযোগিতা, ভারতের মধ্য দিয়ে নেপাল ও ভুটান থেকে বিদ্যুৎ আমদানির মতো গুরুত্বপূর্ণ বিষয়েও আলোচনা হয়েছে। বৈঠক শেষে দুই দেশের মধ্যে ৭টি এমওইউ বা সমঝোতা স্মারক স্বাক্ষরিত হয়। সমঝোতা স্মারক স্বাক্ষরের পর নরেন্দ্র মোদি এবং আমি যৌথ সংবাদ সম্মেলনে বক্তব্য দেই।

খাদ্যপণ্য রফতানি বন্ধ করলে করলে ভারত বাংলাদেশকে আগেই জানাবে উল্লেখ করে প্রধানমন্ত্রী বলেন, চিনি, পেঁয়াজ, আদা, রসুনের মতো নিত্যপ্রয়োজনীয় খাদ্যদ্রব্য রফতানি বন্ধের আগে বাংলাদেশকে আগাম বার্তা দেবে ভারত। সে অনুযায়ী সরকার পদক্ষেপ নেবে।

রোহিঙ্গা সংকট সমাধানের বিষয়ে ভারতের অবস্থান কী জানতে চাইলে প্রধানমন্ত্রী বলেন, এ ব্যাপারে আলোচনা হয়েছে। ভারত এটা মনে করে, তারা উপলব্ধি করে যে, আমাদের এখানে রোহিঙ্গাদের দীর্ঘদিন অবস্থানে একটা দীর্ঘ সংকট সৃষ্টি হচ্ছে। আমাদের প্রাকৃতিক সম্পদ নষ্ট হচ্ছে, পরিবেশ নষ্ট হচ্ছে। সবচেয়ে বড় কথা যে, তাদের নিজেদের ভিতরে নিজেদের দ্বন্দ্ব। যার ফলে এখানে নানা ধরনের ড্রাগ ট্রাফিকিং বা নিজেদের মধ্যে অস্ত্র, সংঘাত নানা ধরনের ঘটনা ঘটছে, যেটা পরিবেশটাকে আরও নষ্ট করছে। তবুও আমরা সাধ্যমত চেষ্টা করছি। ভারতকে আমরা বলেছি যে, তারা যেন এ ব্যাপারে সহযোগিতা করে, তো তাদের সাড়াটা পেয়েছি ইতিবাচক। কিন্তু সমস্যা হয়ে গেছে মিয়ানমারের সরকারকে নিয়ে। এদের যে যেখান থেকে যতই চাপ দিক, তারা তো কোনো ব্যাপারে কিছু করে না। তারা তো নিজেরাই নিজেদের দ্বন্দ্বে সংঘাতে লিপ্ত রয়েছে। এখানেই বড় সমস্যা। কিন্তু ভারত সবসময়ই এটা মনে করে যে, এটার সমাধান হওয়া উচিত।
ঢাকা,বুধবার ১৪ সেপ্টেম্বর,এইচ বি নিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম।

সর্বশেষ আপডেট



» ফুলবাড়ী ২৯ বিজিবির ৪২তম প্রতিষ্ঠা বার্ষিকী কেক কেটে পালিত॥

» নতুন করে আরও ৬৭৯ জন করোনা আক্রান্ত রোগী শনাক্ত,দুজনের মৃত্যু হয়েছে।

» গত ২৪ ঘণ্টায় ডেঙ্গু জ্বরে আক্রান্ত হয়ে আরও ৫০৬ জন নতুন রোগী দেশের বিভিন্ন হাসপাতালে ভর্তি

» আবারও লাঠি নিয়ে মাঠে নামলে বিএনপির খবর আছে জাতীয় পতাকার অবমাননা করে রাজনীতি মেনে নেয়া হবে না

» তত্ত্বাবধায়ক সরকার ব্যবস্থা আর ফিরে আসার সুযোগ নেই

» রাজধানীতে অজ্ঞানপার্টির খপ্পরে পড়ে এক ব্যবসায়ী মারা গেছেন

» পিরোজপুরের মঠবাড়িয়ায় জাতীয় পার্টির নেতাকে কুপিয়ে পা বিচ্ছিন্ন করেছে সন্ত্রাসীরা

» মিয়ানমারের ক্ষমতাচ্যুত নেত্রী অং সান সু চির আরও ৩ বছরের কারাদণ্ড

» ৭৬ পাউন্ড কেক কেটে প্রধান মন্ত্রীর  জন্মদিন পালন করল মাধবদী শহর আওয়ামীলীগ।

» অভিনব কায়দায় রাজধানীর বিভিন্ন এলাকার বাসা-বাড়ি ও দোকানের গ্রিল কেটে চুরি করতেন আজিজুল

লাইক দিয়ে সংযুক্ত থাকুন

 

 

 

প্রকাশক ও সম্পাদক: কাজী আবু তাহের মো. নাছির।

 

প্রধান নির্বাহী সম্পাদক: আফতাব খন্দকার (রনি)

 

সহ বার্তা সম্পাদক: কাজী আতিকুর রহমান আতিক (আবির)

Desing & Developed BY PopularITLtd.Com
আজ বৃহস্পতিবার, ২৯ সেপ্টেম্বর ২০২২ খ্রিষ্টাব্দ, ১৪ই আশ্বিন, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ

বন্ধুপ্রতিম দেশ হিসেবে ভারত থেকে সব বিষয়েই সহযোগিতা পাচ্ছি




ভারত থেকে কী পেলাম প্রশ্নটি আপেক্ষিক। ভারত থেকে কী পেয়েছি এটা নির্ভর করছে আপনি কীভাবে দেখছেন তার ওপর। বাংলাদেশের ভৌগলিক অবস্থানে চারদিকে ভারত। বন্ধুপ্রতিম দেশ হিসেবে ভারত থেকে সব বিষয়েই সহযোগিতা পাচ্ছি। বুধবার (১৪ সেপ্টেম্বর) গণভবনে ভারত সফর নিয়ে সংবাদ সম্মেলনে এসব কথা বলেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।

এ সময় প্রধানমন্ত্রী বলেন, এ সফরে বাংলাদেশের উল্লেখযোগ্য প্রাপ্তি আছে। সফরে রোহিঙ্গা প্রত্যাবাসন বিষয়ে সহযোগিতা, ভারতের মধ্য দিয়ে নেপাল ও ভুটান থেকে বিদ্যুৎ আমদানির মতো গুরুত্বপূর্ণ বিষয়েও আলোচনা হয়েছে। বৈঠক শেষে দুই দেশের মধ্যে ৭টি এমওইউ বা সমঝোতা স্মারক স্বাক্ষরিত হয়। সমঝোতা স্মারক স্বাক্ষরের পর নরেন্দ্র মোদি এবং আমি যৌথ সংবাদ সম্মেলনে বক্তব্য দেই।

খাদ্যপণ্য রফতানি বন্ধ করলে করলে ভারত বাংলাদেশকে আগেই জানাবে উল্লেখ করে প্রধানমন্ত্রী বলেন, চিনি, পেঁয়াজ, আদা, রসুনের মতো নিত্যপ্রয়োজনীয় খাদ্যদ্রব্য রফতানি বন্ধের আগে বাংলাদেশকে আগাম বার্তা দেবে ভারত। সে অনুযায়ী সরকার পদক্ষেপ নেবে।

রোহিঙ্গা সংকট সমাধানের বিষয়ে ভারতের অবস্থান কী জানতে চাইলে প্রধানমন্ত্রী বলেন, এ ব্যাপারে আলোচনা হয়েছে। ভারত এটা মনে করে, তারা উপলব্ধি করে যে, আমাদের এখানে রোহিঙ্গাদের দীর্ঘদিন অবস্থানে একটা দীর্ঘ সংকট সৃষ্টি হচ্ছে। আমাদের প্রাকৃতিক সম্পদ নষ্ট হচ্ছে, পরিবেশ নষ্ট হচ্ছে। সবচেয়ে বড় কথা যে, তাদের নিজেদের ভিতরে নিজেদের দ্বন্দ্ব। যার ফলে এখানে নানা ধরনের ড্রাগ ট্রাফিকিং বা নিজেদের মধ্যে অস্ত্র, সংঘাত নানা ধরনের ঘটনা ঘটছে, যেটা পরিবেশটাকে আরও নষ্ট করছে। তবুও আমরা সাধ্যমত চেষ্টা করছি। ভারতকে আমরা বলেছি যে, তারা যেন এ ব্যাপারে সহযোগিতা করে, তো তাদের সাড়াটা পেয়েছি ইতিবাচক। কিন্তু সমস্যা হয়ে গেছে মিয়ানমারের সরকারকে নিয়ে। এদের যে যেখান থেকে যতই চাপ দিক, তারা তো কোনো ব্যাপারে কিছু করে না। তারা তো নিজেরাই নিজেদের দ্বন্দ্বে সংঘাতে লিপ্ত রয়েছে। এখানেই বড় সমস্যা। কিন্তু ভারত সবসময়ই এটা মনে করে যে, এটার সমাধান হওয়া উচিত।
ঢাকা,বুধবার ১৪ সেপ্টেম্বর,এইচ বি নিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম।

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ



সর্বশেষ আপডেট



সর্বাধিক পঠিত



 

প্রকাশক ও সম্পাদক: কাজী আবু তাহের মো. নাছির।

 

প্রধান নির্বাহী সম্পাদক: আফতাব খন্দকার (রনি)

 

সহ বার্তা সম্পাদক: কাজী আতিকুর রহমান আতিক (আবির)

প্রধান কার্যালয়: গ-১০৩/২ মধ্যবাড্ডা লিংকরোড ঢাকা-১২১২ | ব্রাঞ্চ অফিস: ২৪৭ পশ্চিম মনিপুর, ২য় তলা, মিরপুর-২, ঢাকা -১২১৬।

Phone: +8801714043198, Email: hbnews24@gmail.com

এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা বা ছবি অনুমতি ছাড়া নকল করা বা অন্য কোথাও প্রকাশ করা সম্পূর্ণ বেআইনি । সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত © HBnews24.com